তালবিনা

৳ 250.00

আয়িশাহ (রাঃ) হতে বর্ণিত যে, আমি রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম -কে বলতে শুনেছি যে, ‘তালবিনা’ রুগ্ন ব্যক্তির হৃদয়ে প্রশান্তি আনে এবং শোক দুঃখ কিছুটা দূর করে।

সু- স্বাস্থ্যের জন্য তালবিনাঃ
১। কোলেস্টেরলের মাত্রা কমায়।
২। হজমের জন্য ভালো।
৩। আমাদের হৃত্পিণ্ডের জন্যও ভালো।
৪। ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য পথ্য।
৫। রক্তচাপ কমায়।
৬। কিডনি রোগের উপশম করে।
৭। দুর্বল ব্যক্তিরা স্বাভাবিক খাবারের বিকল্প হিসেবে খেতে পারেন।
৮। তাছাড়া তালবিনায় রয়েছে প্রচুর পরিমাণে প্রোটিন, মিনারেল, ফাইবার যা শিশুর বৃদ্ধির জন্য অত্যন্ত জরুরি।

প্রোডাক্টঃ তালবিনা
উপকরণঃ যব, ছোলা ও ভুট্টার সুষম মিশ্রণে তৈরি অত্যন্ত স্বাস্থ্যকর খাদ্য।
পরিমাণঃ ৫৫০ গ্রাম
মূল্যঃ ২০০ টাকা

Description

যেভাবে তৈরি:
যব, ছোলা এবং চাল আলাদা করে শুকিয়ে, তেল ছাড়া শুকনো ভেজে গুড়া করে নির্দিষ্ট অনুপাতে মেশানো হয়। মিশ্রণ চালুনি দিয়ে চেলে বোতলজাত করা হয়।যব নিয়ে প্রায় ২১টি হাদিস পাওয়া যায়। রসুল সাল্লালাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম অসুস্থ, শোকাতর এবং বিষণ্ণতায় আক্রান্ত মানুষদের জন্য আত-তালবিনা নামক যে খাবারটি খাওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন তা মূলত যবের আটা দিয়ে তৈরি। যবে আটটি আবশ্যিক এমাইনো এসিডসহ উচ্চমানের প্রোটিন থাকে বিধায় যব যাদের প্রধান খাদ্য তারা দৈহিকভাবে অত্যন্ত সুঠাম এবং সুগঠিত হয়।যেভাবে খাওয়া যায়:
১. ছাতু হিসেবে: সমপরিমাণ দুধ বা দইয়ের সাথে মিশিয়ে। পরিমাণ মত চিনি, মধু বা গুড় মিশিয়ে ভালোভাবে মাখিয়ে নিতে হবে।
২. আত-তালবিনা: ইমাম ইবনে তাইমিয়ার মতে ১ ভাগ যব ৫ ভাগ পানির সাথে মিশিয়ে চুলায় হালকা আঁচে জ্বাল দিয়ে তিন-চতুর্থাংশে কমে আসলে নামিয়ে ফেলতে হবে। এই তরলটি সারিদ জাতীয় খাবার সাথে পান করা যায়। পরিমাণ মত চিনি, মধু বা গুড় মিশিয়ে দুধ বা দইয়ের সাথে মিশিয়েও খাওয়া যায়।
৩. ইয়েমেনি সুপ:
১ কাপ তালবিনা পাউডার, ১/২ কাপ মশুর ডাল, ৬ কাপ পানি, ৩টি ছোট পেয়াজ (কুচি করা কাটা), ২টেবল চামচ জলপাই তেল, ১ চা চামচ হলুদ, ১/২ চা চামচ গোলমরিচের গুড়া, ১ কাপ ছোলা রান্না, ১/২ কাপ রান্না গরুর গোশত ছোট করে কাটা।
বাদামী না হওয়া পর্যন্ত জলপাইয়ের তেলে পেয়াজ ভেজে নিন। একটা সসপ্যানে ছোলা আর গোশত ছাড়া বাকি সবকিছু মিশিয়ে একবার ফুটিয়ে নিন। এবার জ্বাল কমিয়ে হালকা আঁচে দেড় ঘন্টা রাখুন। হালকা নাড়ুন। রান্নার শেষে ছোলা এবং গোশত মিশিয়ে নিন।
৪. শিশু খাদ্য:
চাল বা গমের সুজির পুষ্টিকর বিকল্প হিসেবে বাচ্চাদের রান্না করে খাওয়ানো যায়। আঁশ জাতীয় খাবার, ভিটামিন এবং মিনারেলের ঘাটতি মেটাতে উঠতি বয়সী শিশু-কিশোরদের হরলিক্সের বিকল্প হিসেবেও দেয়া যায়।

 

Reviews

There are no reviews yet.

Be the first to review “তালবিনা”

Your email address will not be published. Required fields are marked *